ভক্তের বিয়ের প্রস্তাবে সাড়া দিলেন শবনম ফারিয়া

ছোটপর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শবনম ফারিয়া। ২০১৫ সালে ফেসবুকের মাধ্যমে হারুন অর রশিদ অপুর সঙ্গে

বন্ধুত্ব হয় এই অভিনেত্রীর। প্রায় তিন বছর পর বন্ধুত্বের সম্পর্ক থেকে ২০১৯ সালের ফেব্রুয়ারির মাসে পারিবারিকভাবে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন তারা। কিন্তু

সেই সংসার বেশিদিন টিকেনি। প্রায় দুই বছরের বৈবাহিক জীবনের অবসান ঘটিয়ে গত বছরের শেষের দিকে

বিচ্ছেদের পথে হাটেন তারা। বিবাহ বিচ্ছেদের পর থেকে বর্তমানে একাই রয়েছেন শবনম ফারিয়া। এই অভিনেত্রী আবারও

বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হবেন কিনা তা নিয়েও ভক্তদের কৌতুহলের শেষ নেই। তবে এবার এক ভক্তের বিয়ের প্রস্তাবে সাড়া দিয়েছেন ফারিয়া। অভিনয়ের পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়াতেও

বেশ সরব তিনি। বিভিন্ন সময় নিজের ছবি কিংবা স্ট্যাটাসে বিভিন্ন বার্তা দিয়ে থাকেন তিনি। সেই ধারাবাহিকতায় গেলো শুক্রবার (২৭ আগস্ট) রাতে

ফেসবুকে একটি ছবি শেয়ার করেন ফারিয়া। সেখানে কমলা রঙের শাড়িতে খোলা চুলে দেখা গেছে তাকে। কপালের ছোট্ট টিপ আর ঠোঁটের হালকা লিপস্টিকে নজরকাড়া রূপে হাজির হয়েছেন। সঙ্গে ক্যাপশনে লিখেছেন- ‘যার কথা ভাসে, মেঘলা বাতাসে, তবু সে দূরে তা মানি না’।

ফারিয়ার সেই পোস্টের কমেন্ট বক্সে সরাসরি তাকে বিয়ের প্রস্তাব দিয়েছেন এক ভক্ত। তাহসিন বিন মোহাম্মদ নামের সেই ব্যক্তি লিখেছেন, ‘আপনি অনেক সুন্দর, আমি আপনাকে বিয়ে করতে চাই।’ সেই কমেন্টে ৭ শতাধিক রিয়েক্ট পড়েছে। ভক্তের সেই প্রস্তাবকে উপেক্ষা করতে পারেননি শবনম ফারিয়া। তাহসিনের প্রস্তাবে সাড়া দিয়ে তিনি লিখেছেন, ‘ওয়েট, আম্মুকে জানাচ্ছি ব্যাপারটা! বাই দ্য ওয়ে, এখানে মেকআপ করা, মেকআপ ছাড়া কিন্তু বেশি ভাল না দেখতে!’ ফারিয়ার সেই কমেন্টে প্রায় ৪ হাজার রিয়্যাক্ট পড়েছে।

তবে ফারিয়া যে কমেন্টটা মজার ছলেই করেছেন, তা সহজেই অনুমান করা যায়। কারণ ফেসবুকে অনুসারীদের মন্তব্যে প্রায়শই সাড়া দেন তিনি। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভক্তদের সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলো বেশ উপভোগ করেন এই অভিনেত্রী। কখনো কখনো নেতিবাচক মন্তব্যের কারণে মনঃক্ষুণ্ণও হয় তার।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*